অগ্নি বীমা কি ? অগ্নি বীমার উৎপত্তি | What is fire insurance? Origin of Fire Insurance

 অগ্নি বীমা 

প্রিয় পাঠক আশা করি ভাল আছেন, নাগরীক জীবরেন অতি মুল্যবান সময় আমাদের সাইটের দেয়ার জন্য আপনাকে আমাদের ওয়েবসাইটের পক্ষ থেকে আন্তরিক অভিনন্দন জায়িয়ে আজকের লেখাটি শুরু করছি। 

আজ আমরা একটি অতি গুরুত্বপুর্ণ এবং বহুল জিগ্গাসিত প্রশ্নের উত্তর খোজার চেষ্টা করব। আমাদের বিগত আলোচনা থেকে আপনি বুঝতে পেরেছেন আমাদের জীবনে বীমার কতটা গুরুত্ব আছে। আমাদের অবর্তমানে আমাদের সন্তানদেন জীবন নিরাপদ রাখতে আমাদের জীবন বীমা করার কোন বিকল্প আছে বলে তো আমার মনে হয় না। 

অগ্নি বীমা  কি ? অগ্নি বীমার উৎপত্তি

কারণ বাংলাদেশের আর্থ সামাজিক পেক্ষাপটে পিতার কিংবা পরিবারের উপার্জনশীল ব্যক্তিটি যদি মারা যায় তবে সেই পরিবারটি সিমাহিন আর্থিক অনিশ্চয়তার মধ্যে পতিত হয়। তাই আমাদের পরিবার ও সন্তানাদির নিরাপত্তার জন্য বীমা করতে হবে।

প্রিয় পাঠক আমরা অনেকেই ব্যাবসা বানিজ্য করে থাকি, কেউ বা কল কারখানা চালু করেছি নিজের এবং অন্যের কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে, যে কোন সময় আমাদের দোকান কিংবা কল কারখানাতে আগুন লাগতে পারে। এতে করে আমাদের অপুরণীয় ক্ষতি হতে পারে। 

যে ব্যক্তির উপার্জনের এক মাত্র মাধ্যম একটি দোকান তার সে দোকানে আগুন লেগে যদি সমস্ত মালামাল পুরে যায় কিংবা আংশিক ক্ষয়খতিও হয় তবে তার ব্যাবসায়ি মুলধনের বড় ক্ষতি সাধিত হতে পারে। সেই ব্যক্তি যদি অগ্নি বীমা দ্বারা ব্যাবসাটিকে সুরক্ষিত রাখেন তবে তিনি আর্থিক ক্ষতি থেকে সুরক্ষিত থাকতে পারবেন।

আজ আমরা অগ্নি মীমা নিয়ে কিনচিত আলোচনা করার চেষ্ট করব, 

অগ্নি বিমা কি?

অগ্নি বীমা হল এমন এক বীমা সেবা যা দ্বারা মীমা গ্রহিতার ব্যবসা বানিজ্য অগ্নি দ্বারা ক্ষতির শিকার হলে আর্থিক ক্ষতিপুরনের নিশ্চয়তা। নিবন্ধিত বীমা সেবা প্রদান কারী প্রতিষ্ঠান থেকে বীমা গ্রহণে আগ্রহী ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান এই বীমা সুবিধা পেতে পারবে। বীমা সুবিধা পেতে হলে বীমা গ্রহিতাকে মাসিক অথবা বাৎসরি প্রিমিয়াম প্রদান করতে হবে। 

প্রিমিয়াম কত টাকার হবে তা বীমা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান নির্ধারণ করবে। বীমা গ্রহিতা এবং বীমা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক চুক্তি সমপাদিত হবে। বাংলাদেশের পেক্ষাপটে যে চুক্তিকে আইনি বৈধতা প্রদান করবে বীমা কর্তিৃপক্ষ আইন ২০০৯। নিবন্ধীত বীমা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ছাড়া অন্য কোন অনিবন্ধিত বীমা প্রতিষ্ঠান থেকে বীমা সেবা গ্রহণ করা ঠিক হবে না। 

আমাদের দেশে অনেক অসাধু মানুষ আছেন যারা বিভিন্য সেবা প্রদানের আড়ালে জনগণের অর্থ আত্বসাত করে থাকেন, এসকল অসাধু মানুষের খাবা থেকে নিজেকে সুরক্ষিত রাখতে হবে। অগ্নি বীমা সেবা প্রদান করে এমন একটি বীমা প্রতিষ্ঠান নিয়ে আলোকপাত করার চেষ্ঠা করছি।

বাংলাদেশের শির্ষ সারিতে অবস্থানরত একটি বীমা কোম্পনির নাম গ্রগতি ইন্সুরে লিমিডেট। এই বীমা সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান অগ্নি বীমা সুবিধা প্রদান করে থাকে চলুন জেনে নেই কোন অগ্নি পলিসিতে কত টাকা প্রিমিয়াম দিতে হয় এবং পলিসির মেয়াদ ও সুবিধাসুমূহ কি ভাবে সেবা পেতে পারেন সে সম্পর্কে সবিস্তার বর্ণনা দিয়ে খুব তারাতারি একটি নতুন নিবন্ধ প্রকাশ করব।

এই লেখাতে সকল তথ্য এক সাথে দিতে গেলে পোষ্টটি অনেক বেশি বড় হয়ে যাবে ফলে লেখাটি পড়তে কিংবা মনে রাখতে আপনাদের অসুবিধা হতে পারে। তাই আপনার স্বাছন্দ এবং সুবিধার বিষয়টি বিবেচনা করে আমরা অগ্নি বীমা বিষয়ক নিবন্ধটি কয়েকটি পর্বে পরিবেশন করার সিন্ধান্ত গ্রহণ করেছি। 

প্রিয় পাঠক ভাল থাকবেন নিরাপদে থাকবেন, এবং শিশুদের সাথে সুন্দর ও মার্জিত আচরণ করবেন, মনে রাখবেন আজকের শিশু আগামী দিতের ভবিস্যত, আমাদের সাইটে আপনার মুল্যবান সময় ব্যয় করার জন্য আবারও অসংখ্য ধন্যবাদ জানিয়ে আজকের মত বিদয় নিচ্ছি।


Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url

আপনি যা খুজছেন